মঙ্গলবার, ০২ জুন ২০২০, ১১:৪৯ অপরাহ্ন

এখন পর্যন্ত পিপিই প্রয়োজন নেই

  • সর্বশেষ আপডেট সোমবার, ২৩ মার্চ, ২০২০, ২.৩০ পিএম

করোনায় আক্রান্ত রোগীকে চিকিৎসা করাতে গিয়ে ইতিমধ্যে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন চিকিৎসক ও নার্স

ঢাকা।। করোনাভাইরাস আক্রান্ত রোগীর চিকিৎসা করতে গিয়ে আক্রান্ত হয়েছেন এক চিকিৎসক ও দুই নার্স। হোম কোয়ারেন্টিনে আরও ৪ জন। পিপিইসহ নিরাপত্তা সরঞ্জাম না থাকার অভিযোগ করছেন চিকিৎসা সংশ্লিষ্টরা। তবে, সচিবালয়ে আজ সোমবার (২৩শে মার্চ) সংবাদ সম্মেলনে স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, ‘এখনও এসব সরঞ্জামের এতটা প্রয়োজন নেই।’

নিরাপত্তা সরঞ্জামের অভাবে কর্মবিরতিতে খুলনা মেডিক্যালের ইন্টার্ন চিকিৎসকরা। রোগী দেখা বন্ধ করেছেন তারা।

পিপিই তো দূরের কথা, চিকিৎসকদের ন্যুনতম মাস্কও চিকিৎসকদের নিজ দায়িত্বে সংগ্রহের পরামর্শ দিয়েছে সলিমুল্লাহ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক বলেন, ‘এখনও পিপিই বা নিরাপত্তা সরঞ্জামের এতটা প্রয়োজন নেই। তারপরেও আমরা লক্ষ লক্ষ পিস বানিয়ে রেখেছি। এই চিন্তা কোনো রাষ্ট্র করেছে কি না তা আমার জানা নেই।’ সোমবার ব্রিফিং করে স্বাস্থ্যমন্ত্রী জানান, করোনাভাইরাস পরীক্ষার জন্য আরও ৮টি ল্যাব হচ্ছে। আমাদের ল্যাব আছেই তারপরেও আমরা যে ল্যাবগুলো করছি সেগুলো বাড়তি হিসেবেই করা হচ্ছে। করোনা শনাক্তের জন্য যে মেশিনগুলো আসছে তার পরিকল্পনা আমরা আরও তিনমাস আগেই করে রেখেছিলাম যার ফলে এখন এই মেশিনগুলো আসছে।

এছাড়া ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল ও বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যলয়েও করোনা পরীক্ষার ল্যাব স্থাপন করা হবে বলেও জানান মন্ত্রী। তবে, সে ল্যাব স্থাপন করতে ৭ থেকে ১০ দিন সময় লাগার কথাও উল্লেখ করেন মন্ত্রী।

এই ক্যাটাগরির আরও সংবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

themebaalokitokant1852550985
©2019-20 All rights reserved Alokitokantho  
Devoloped by alokito kantho.com